Friday, May 24, 2024
spot_img
Homeগ্যাজেটসনতুন পন্যবাজারে এলো কোরিয়ান প্রযুক্তিতে তৈরি বাজেট এলইডি মনিটর

বাজারে এলো কোরিয়ান প্রযুক্তিতে তৈরি বাজেট এলইডি মনিটর

যারা স্কুল-কলেজের পড়াশোনা ও অফিশিয়াল কাজের জন্য সাধ্যের মধ্যে একটি ভালোমানের বাজেট এলইডি মনিটর খুঁজছেন, তাদের জন্য দেশের বাজারে বাজেট এলইডি মনিটর নিয়ে এলো সুমাইয়া টেকনোলজিস লিমিটেড। মনিটরটির মডেল এসটি১৯-আরএল ৫০০এস। এটি কমপ্যাক্ট ডিজাইন ও আঁকারে ছোট হওয়ায় সহজে বহনযোগ্য।

ব্যবহারকারীদের কাছ থেকে ভাল ফিডব্যাক পেয়ে এবং ক্রেতাদের অনুরোধ ও চাহিদার কথা চিন্তা করে এবার এসটিএল ব্র্যান্ডের বাজেট এলইডি মনিটর নিয়ে এসেছে সুমাইয়া টেক। এসটিএল ব্র্যান্ডের বাজারে আসা এই মনিটর ব্যবহারকারীদের স্কুল-কলেজ স্টুডেন্টদের অ্যাসাইনমেন্ট করা, অনলাইনে ক্লাস করা, ফ্রিল্যান্সিং কাজ, মুভি দেখা, অফিস ওয়ার্ক বা ইন্টারনেট ব্রাউজিংকে করে তুলবে প্রাণবন্ত।

১৯ ইঞ্চির ফুল এইচডি মনিটরটির ডিসপ্লের রেজুলেশন ১৩৬৬ x ৭৬৮। এন্টি গ্ল্যেয়ার মনিটরে রয়েছে থ্রি এইচ কোটিং। এটির রেন্সপন্স টাইম ৫ মিলিসেকন্ড। ফ্লিকার ফ্রি মনিটরটিতে ব্ল্যাক স্ট্যাবিলাইজার ফিচার আছে। কালার ডেপথের মনিটরটি দিতে পারবে অসাধারণ পিকচার কোয়ালিটি। এই মনিটরের রিফ্রেশ রেট ২৫-৭৫ হার্জ। এর সঙ্গে ৯০ ও ৬৫ ডিগ্রি ভিউইং অ্যাঙ্গেল এবং ১০০০০:১ (ডিসিআর) কনট্রাস্ট রেশিও থাকায় এতে স্পষ্ট ও প্রাণবন্ত ছবি দেখার অভিজ্ঞতা মিলবে। বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার যেমন, যেকোনো অ্যাঙ্গেল থেকেও ব্যবহারকারী হাই-কোয়ালিটি পিকচার পাওয়া যাবে। মাল্টিপল কানেকটিভিটি হিসেবে এই মনিটরে রয়েছে ডিসপ্লে, এইচডিএমআই ও ভিজিএ পোর্ট। বাজেট এলইডি মনিটরটি বিষয়ে কোরিয়ায় প্রবাসী বাংলাদেশি নারী উদ্যোক্তা সুমাইয়া টেকনোলজিস লিমিটেডের চেয়ারম্যান রিপা আর জাহান বলেন, আমি দেড় যুগের বেশি সময় ধরে কোরিয়াতে বসবাস করছি। সেখান থেকে কম্পিউটারের বিভিন্ন যন্ত্রাংশ এনে দেশে আইটি ইন্ডাস্ট্রিতে সফলতার সাথে ব্যবসা করছি। দীর্ঘদিন ব্যবসার অভিজ্ঞতা থেকে দেখেছি কোরিয়ান টেকনোলজির পণ্যগুলি গুণগতমানসম্পন্ন হয়ে থাকে। তিন মাস ধরে বাজারে বিক্রি করা এলইডি মনিটর নিয়ে গবেষণা করেছি। পরে সম্পূর্ণ কোরিয়ান প্রযুক্তিতে আমার নিজস্ব পরিকল্পনা ও ডিজাইনে দেশের স্কুল-কলেজের স্টুডেন্ট, ফ্রিল্যান্সার ও অফিশিয়াল কাজের জন্য একটা এলইডি মনিটর তৈরি করেছি। এটি মূলত, আর্থিক দিক থেকে বেশি স্বচ্ছ্বল না, এমন মিডরেঞ্জের ক্রেতাদের টার্গেট করে তৈরি করা হয়েছে। ঘরে-বাইরে, করপোরেট অফিস, স্কুল-কলেজসহ যেকোনো প্রতিষ্ঠানের কম্পিউটার বা ডেস্কটপ পিসি ব্যবহারকারীদের জন্য এটা একটা উপযুক্ত ও মানসম্পন্ন পণ্য। আমার বিশ্বাস, এটি দেশের বাজারে ক্রেতাদের চাহিদা পূরণ করতে সক্ষম হবে। সফল এই আইটিপণ্য ব্যবসায়ী বলেন, ব্যবহারকারীদের কাছে জনপ্রিয়তা ও গ্রহণযোগ্যতা পেলে ভবিষ্যতে এই মনিটরটি সম্পূর্ণ কোরিয়ান প্রযুক্তিতে এসটিএল ব্র্যান্ডে মেইড ইন বাংলাদেশ ট্যাগ দিয়ে দেশে অ্যাসেম্বলিং করার পরিকল্পনা রয়েছে। মনিটরটি কিনলে গ্রাহকদের জন্য থাকছে ২ বছরের ওয়ারেন্টি সুবিধা।

spot_img
আরও পড়ুন
- Advertisment -spot_img

সর্বাাধিক পঠিত

spot_img