ওয়ালটনের নতুন ৪ মডেলের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট বাজারে

Power Supply Unit

দেশের প্রযুক্তিপণ্যের বাজারে একের পর এক চমক নিয়ে আসছে ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড। বাংলাদেশে নিজস্ব কারখানায় বিভিন্ন ডিজিটাল ডিভাইস ও এক্সেসরিজ তৈরি এবং বাজারজাত করছে ওয়ালটন। এরই ধারাবাহিকতায় এবার ৪ মডেলের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট বা পিএসইউ বাজারে ছাড়লো ওয়ালটন। কম্পিউটার বা ডেস্কটপ পিসির অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ এ যন্ত্রাংশে রয়েছে অত্যাধুনিক সব ফিচার। যার মধ্যে একটি মডেলের রয়েছে ৮০ প্লাস গোল্ড সার্টিফাইড এফিশিয়েন্সি এবং আরজিবি।

উল্লেখ্য, যে কোনো ইলেকট্রিক কিংবা ডিজিটাল ডিভাইস চালাতে বিদ্যুতের প্রয়োজন হয়। আর কম্পিউটারে বিদ্যুত সরবরাহ করে থাকে পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট। এটি অল্টারনেটিং কারেন্ট বা এসি কে লো-ভোল্টেজ ডিরেক্ট কারেন্ট বা ডিসিতে রূপান্তর করে। এরপর কম্পিউটারের মাদারবোর্ড, র‌্যাম, হার্ডড্রাইভসহ বিভিন্ন অংশে প্রয়োজন অনুযায়ী বিদ্যুত সরবরাহ করে থাকে।

কম্পিউটার প্রকৌশলীরা জানান, সঠিক মানের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট ব্যবহার না করা হলে কম্পিউটার থেকে সেরা পারফর্মেন্স পাওয়া যায় না। ভোল্টেজ আপ-ডাউন করলে নি¤œমানের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট সহজেই জ্বলে যায় এবং সম্পূর্ণ কম্পিউটার অকেজো করে ফেলে। ক্ষতি করতে পারে মাদারবোর্ডসহ অন্যান্য হার্ডওয়্যারেরও। সেজন্য বিল্ট পিসিতে একটি ভালো মানের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট খুবই গুরুত্বপূর্ণ। সেইসঙ্গে পিসির কাজের ধরণ ও প্রয়োজন অনুযায়ী সঠিক ওয়াটের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট বেছে নেয়া জরুরি। পিসির চাহিদামতো পাওয়ার সাপ্লাই না হলে পুরো কম্পিউটারই ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।

এ খাতের প্রকৌশলীরা জানান, বাজারে থাকা পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিটের বেশিরভাগই নন-ব্র্যান্ডের। এগুলোর গায়ে হাই স্পেক লেখা থাকলেও প্রকৃতপক্ষে মিল থাকে না। এসবে উচ্চ ওয়াটের কনফিগারেশন উল্লেখ থাকলেও আসলে পাওয়ার সাপ্লাই দেয় অনেক কম। আবার ক্যাপসিটরও থাকে নি¤œমানের। পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট সম্পর্কে ধারণা না থাকায় অনেক ক্রেতাই নি¤œমানের এসব যন্ত্রাংশ কিনে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন। তাই সবার উচিত একটি বিশ্বস্ত ও নির্ভরযোগ্য ব্র্যান্ডের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট ব্যবহার করা।

ওয়ালটন সূত্রে জানা গেছে, ক্রেতাদের চাহিদা বিবেচনায় তারা ৪ মডেলের পিএসইউ বাজারে ছেড়েছে। ওয়ালটনের পাওয়ার ডিভাইস ব্র্যান্ড ‘আর্ক’ এর প্যাকেজিং-এ নিজস্ব কারখানায় তৈরি পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিটগুলো ইতোমধ্যে দেশের সর্বত্র পাওয়া যাচ্ছে। পাশাপাশি ঘরে বসে ওয়ালটনের নিজস্ব অনলাইন শপ ই প্লাজা (https://eplaza.waltonbd.com) থেকে ডিজিটাল ডিভাইসসহ ওয়ালটনের সব ধরনের পণ্য কিনতে পারছেন গ্রাহক।

ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর প্রকৌশলী মো. লিয়াকত আলী জানান, নিজস্ব কারখানায় কঠোর মান নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে তৈরি ওয়ালটন পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট অত্যাধুনিক। নতুন আসা ৮০ প্লাস গোল্ড সার্টিফাইড এফিশিয়েন্সির ৭৫০ ওয়াটের ওয়ালটন পিএসইউ’র মূল্য ৭,৮৫০ টাকা। এআরজিবি মডিউলার এটিএক্স ১২ ভোল্টের ওই পিএসইউতে রয়েছে ১৪০ মিলিমিটারের স্মার্ট থার্মাল কন্ট্রোল ফ্যান। একটিভ পিএফসি সম্পন্ন ওই পিএসইউ গ্রাফিক্স ও গেমিং পিসির জন্য আদর্শ।

এছাড়া রয়েছে ৩ মডেলের ৮০ প্লাস ব্রোঞ্জ সার্টিফাইড এফিশিয়েন্সির ৪৫০, ৫৫০ এবং ৬৫০ ওয়াটের এটিএক্স ১২ ভোল্টের পিএসইউ। মডেলভেদে দাম ৩,৪৫০ টাকা থেকে ৪,৭৫০ টাকা পর্যন্ত। একটিভ পিএফসি সম্পন্ন ওই পিএসইউগুলোতে রয়েছে ১২০ মিলিমিটারের ফ্যান।

মডেলভেদে ওয়ালটন পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিটে ২ বছরের ওয়ারেন্টি পাচ্ছেন গ্রাহকরা।

বর্তমানে নানা মডেল ও ফিচারের ডেক্সটপ, ল্যাপটপ, অল-ইন-ওয়ান পিসি, মনিটর, ট্যাব, কিবোর্ড, মাউস, পেন ড্রাইভ, ইয়ারফোন, ওয়াই-ফাই রাউটার, ইউপিএস, ইউএসবি হাব, কার্ড রিডার, স্পিকার, এসএসডি, এক্সটারর্নাল এসএসডি, র‌্যাম, পিসিবিএ, মেমোরি কার্ড, পাওয়ার ব্যাংক, প্রজেক্টর, ডিজিটাল রাইটিং প্যাড, ইউএসবি টাইপ সি ক্যাবল ইত্যাদি উৎপাদন ও বাজারজাত করছে ওয়ালটন। খুব শিগগিরই

এক্সেস কন্ট্রোল ডিভাইস, প্রিন্টার, নেটওয়ার্কিং সুইচ, ওয়েবক্যাম ইত্যাদি পণ্যও বাজারে ছাড়বে ওয়ালটনের কম্পিউটার বিভাগ।

*

*