হুয়াওয়ের ওয়্যারলেস রাউটার

Huweai

স্মার্ট ইকোসিস্টেমের অংশ হিসেবে বাসা ও প্রতিষ্ঠানে ব্যবহার উপযোগী উচ্চগতিসম্পন্ন দু’টি ওয়্যারলেস রাউটার নিয়ে এসেছে হুয়াওয়ে। এতে থাকছে ১২০০ এমবিপিএস পর্যন্ত গতিসুবিধা। রাউটার দু’টির বিশেষত্ব হলো এলডিপিসি প্রযুক্তি। এ প্রযুক্তির ফলে নেটওয়ার্ক রেঞ্জের মধ্যে এক বা একাধিক পুরু দেয়াল থাকলেও ইন্টারনেটের গতি ব্যহত  হবে না।

সম্প্রতি দেশের বাজারে নিয়ে আসা রাউটার দু’টি হুয়াওয়ে অনুমোদিত সকল ব্র্যান্ডশপে পাওয়া যাচ্ছে। হুয়াওয়ে রাউটার ডবিøউএস ৩১৮ এন (দুই অ্যান্টেনা) ও ডবিøউএস ৫২০০ (চার অ্যান্টেনা) নামের এ রাউটার দুটিতে থাকছে প্যারেন্টাল কন্ট্রোল, ডিভাইস ম্যানেজমেন্ট, ওয়াইফাই টাইমারসহ দরকারি সব ফিচার। রাউটার দু’টিতে সবসময় একইরকম গতি পাওয়া যাবে ফলে গতি হ্রাসের সমস্যা থাকবে না।

চার অ্যান্টেনার রাউটারটিতে ১ গিগাহার্জের ২৮ ন্যানোমিটারের একটি চিপসেট ব্যবহার করা হয়েছে। চিপসেটটি ২৮ ন্যানোমিটারের হওয়ায় উচ্চগতির পারফরমেন্স পাওয়া যাবে। দ্বিতীয় প্রজন্মের ডুয়াল ব্যান্ডের ওয়্যারলেস এ রাউটারটিতে স্পিড পাওয়া যাবে ১২০০ এমবিপিএস পর্যন্ত। এলডিপিসি প্রযুক্তির এ রাউটারে একসাথে ৫ গিগাহার্জ ও ২.৪ গিগাহার্জের সিগন্যাল পাওয়া যাবে।

হুয়াওয়ের ৫ ডিবিআই এর দুই অ্যান্টেনার রাউটারটিতে সিগন্যাল পাবে ৩০০ এমবিপিএস। এর ফ্রিকোয়েন্সি ২.৪ গিগাহার্জ। এলডিপিসি প্রযুক্তি ব্যবহার করায় দু’টি দেয়াল ভেদ করলেও রাউটারটিতে গতি পাওয়া যাবে ৬৪.৫ এমবিপিএস। আর অন্য প্রযুক্তির তুলনায় এলডিপিসি ইন্টারনেটের গতিও বৃদ্ধিও করবে ৫০ শতাংশ।

মোবাইল অ্যাপ দিয়ে রাউটার দু’টি নিয়ন্ত্রণের পাশাপাশি এতে রয়েছে স্মার্ট হোম লিংক টেকনোলজি, মাসভিত্তিক অ্যাকটিভিটি রিপোর্ট পাওয়ার সুবিধা।

বাংলাদেশের বাজারে চার অ্যান্টেনার রাউটারটির দাম রাখা হয়েছে ৩৮৯৯ টাকা এবং দুই অ্যান্টেনার রাউটারটির দাম রাখা হয়েছে ১৯৫০ টাকা।

নিরবচ্ছিন্ন এআই জীবনব্যবস্থার জন্য স্মার্টফোন কেন্দ্রিক ‘১+৮+এন’ নামে কৌশলগত নতুন পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে হুয়াওয়ে কনজ্যুমার বিজনেস গ্রæপ। এর ফলে সব অপারেশনের কেন্দ্রবিন্দু হিসেবে থাকবে স্মার্টফোন। ‘৮’ প্রতীক দ্বারা আটটি সহায়ক ডিভাইস, যেমন: এআই স্পিকারস, ট্যাবলেটস, পিসি, ওয়্যারেবলস, কানেক্টেড ভেহিক্যালস, এরআর/ভিআর, স্মার্ট ইয়ারফোনস এবং স্মার্ট স্ক্রিনস বোঝানো হয়েছে। আর ‘এন’ দ্বারা স্মার্ট ইকো-সিস্টেমের অসংখ্য আইওটি ডিভাইসমূহের সংমিশ্রণকে বোঝায়।  হুয়াওয়ের পূর্ণাঙ্গ ইকো-সিস্টেম চালু হলে এই তিনটির সমন্বিত রূপে মানুষের লাইফস্টাইল আরো সহজ হয়ে উঠবে।

*

*