সাধ্যের মধ্যে বিশ্বসেরা টিভি ব্র্যান্ড

TV price dop

১৩ বছর ধরে বিশ্বের ১ নম্বর টেলিভিশন ব্র্যান্ড স্যামসাং, বাংলাদেশের বাজারে অভাবনীয় মূল্যছাড়ে টিভি বিক্রির ঘোষণা দিয়েছে। অবিশ্বাস্য মূল্যহ্রাস ক্যাম্পেইনের ফলে ক্রেতারা সাশ্রয়ী দামে বাজারের সেরা মানের টেলিভিশনটি পেয়ে যাচ্ছেন সাধ্যের মধ্যে। এই ক্যাম্পেইন এপ্রিলের শেষ অবধি চলবে।

এই বিশেষ অফারের আওতায় স্টাইলিশ স্লিম ডিজাইন ও ৪ গুণ স্বচ্ছ বা পরিষ্কার ইমেজের রিয়েল ফোরকে আল্ট্রা এইচডি (ইউএচডি) টিভি মডেলগুলো পাওয়া যাবে আকর্ষণীয় মূল্যে। ক্যাম্পেইনের আওতায় স্যামসাং ৪৩এনইউ৭১০০ মডেলের টেলিভিশন সেটটি ৭৬৯০০ টাকার পরিবর্তে পাওয়া যাবে মাত্র ৫৮৯০০ টাকায়, এছাড়া ৪৩এনইউ৭৪৭০ মডেলটি ৭২৯০০ টাকার পরিবর্তে মাত্র ৬৩৯০০ টাকায়, ৪৯এনইউ৭১০০ মডেলটি ১২৪৯০০ টাকার পরিবর্তে মাত্র ৮৮৯০০ ও ৫০এনইউ৭৪৭০ মডেলের টিভি ১১৪৯০০ টাকার পরিবর্তে পাওয়া যাবে মাত্র ৯৫৯০০ টাকায়। এছাড়া ৫৫এনইউ৭১০০ মডেলটি ১৪৪৯০০ টাকার পরিবর্তে ১১৫৯০০ টাকায় ও ৬৫এনইউ৭১০০ মডেলের টিভি ২২৯৯০০ টাকার পরিবর্তে মাত্র ১৯৯৯০০ টাকায় পাওয়া যাবে।

‘ওয়ান রিমোট’ সম্বলিত স্যামসাং স্মার্ট টিভিও থাকছে এই অভাবনীয় মূল্যহ্রাস ক্যাম্পেইনের আওতায়। ৩২এন৪৩০০ মডেলের স্মার্টটিভি ৩৬৯০০ টাকার পরিবর্তে পাওয়া যাবে ৩২৯০০ টাকায়, এছাড়াও ৪৩এন৫৩০০ ও ৪৯এন৩০০ মডেলের টিভি দুটি ৫৭৯০০ ও ৯৯৯০০ টাকার পরিবর্তে পাওয়া যাবে যথাক্রমে মাত্র ৫৩৯০০ ও ৭৫৯০০ টাকায়।

এছাড়াও সাধারণ টিভিতে থাকা ২টি স্পীকারের স্থলে ৪টি স্পীকার সম্বলিত ‘স্যামসাং কনসার্ট’ টিভির দুটি মডেলও কেনা যাবে বিশেষ মূল্যে। ৩২এন৪১০০ ও ৪৩এন৫১০০ মডেল দুটি এই অফারের আওতায় যথাক্রমে ২৯৯০০ ও ৪৮৯০০ টাকার পরিবর্তে পাওয়া যাবে যথাক্রমে ২৬৯০০ ও ৪৪০০০ টাকায়।

এমনকি কালার এনহ্যান্সার প্রযুক্তি সম্বলিত স্যামসাং এলইডি টিভি ৩২এন৪০০০ ও ৪০এন৫০০০ মডেল দুটিও পাওয়া যাবে প্রোমোশনাল মূল্যে। এদুটি মডেলের পূর্বের দাম যথাক্রমে ২৬৯০০ ও ৩৯৯০০ টাকা এবং ক্যাম্পেইনে সেগুলো কেনা যাবে যথাক্রমে ২৪৯০০ ও ৩৬৯০০ টাকায়।

ক্যাম্পেইন চলাকালীন সময়ে মূল্যহ্রাসে টিভি ক্রয়ের পাশাপাশি ২টি টিভি একত্রে ক্রয়ের ক্ষেত্রে ক্রেতারা ৫% ক্যাশব্যাক ও ৩টি ক্রয়ের ক্ষেত্রে ৮% পর্যন্ত সরাসরি ক্যাশব্যাক সুবিধা পাবেন।

অফারটি সম্পর্কে স্যামসাং বাংলাদেশ-এর কনজ্যুমার ইলেক্ট্রনিক্সের হেড অব বিজনেস শাহরিয়ার বিন লুৎফর বলেন “উৎসবের এই মাসে সম্মানিত ক্রেতাদের আনন্দের মাত্রা বাড়িয়ে দিতে চায় স্যামসাং। তাই মান ও নৈপুণ্যের সাথে আপোষ না করেই মূল্যহ্রাসের মাধ্যমে স্যামসাং পণ্যকে সঙ্গী করে আমরা পৌঁছে যেতে চাই মানুষের ঘরে ঘরে”।

*

*