‘রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি’ উন্মুক্ত করলো রিভ অ্যান্টিভাইরাস

reve antivirus
বাংলাদেশী সাইবার নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠান ‘রিভ অ্যান্টিভাইরাস’ নিয়ে এসেছে ‘রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি’। সাম্প্রতিক সময়ের সাইবার হামলাগুলো লক্ষ্য করলে দেখা যাবে- ব্যক্তিগত অনুষঙ্গের বদলে প্রাতিষ্ঠানিক কম্পিউটার ও ডাটার প্রতিই  হ্যাকারদের বেশি নজর। আর তাই প্রাতিষ্ঠানিক সাইবার নিরাপত্তায় এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি এখন অত্যাবশ্যকীয়।
রিমোট ইনস্টলেশন, আপডেট এবং স্ক্যানিং সুবিধাসম্বলিত রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি ম্যালওয়্যার অ্যাটাকের ঝুঁকি এড়াতে প্রতিটি এন্ডপয়েন্টের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে। পাশাপাশি টার্গেটেড অ্যাটাক ও জিরো ডে ভাইরাস প্রতিহতে রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটিতে রয়েছে মেশিন লার্নিং প্রযুক্তি।
রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি ব্যবহারে অফিসের যাবতীয় হার্ডওয়্যার ও সফটওয়্যার ব্যবস্থাপনা সিঙ্গেল কনসোলে চলে আসে। নেটওয়ার্কে ১০ কিংবা ১০০০ যত পিসিই থাকুক না কেন – রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি ইনস্টল করা থাকলে যেকোনো হার্ডওয়্যার বা সফটওয়্যার পরিবর্তন করামাত্র অ্যাডমিন তা জানতে পারবেন। পাশাপাশি, হার্ডওয়্যার অ্যাসেট অডিটের মাধ্যমে জানতে পারবেন প্রয়োজনীয় ওয়ারেন্টি ইনফরমেশনও। কার্যকর ইনভেন্টরি ম্যানেজমেন্টের জন্য হার্ডওয়্যারের পাশাপাশি সফটওয়্যারের জন্যও এই তালিকা করা যায়।
রিভ অ্যান্টিভাইরাসের সিইও সঞ্জিত চ্যাটার্জি জানান, প্রাতিষ্ঠানিক ডাটার নিরাপত্তার জন্য রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটির তথ্য ও বিন্যাস সংরক্ষণে ক্লাউড এবং কনসোলের যুগপৎ মিশ্রণ করা হয়েছে।
তিনি বলেন, ‘ইউএসবি ব্লকিংয়ের পাশাপাশি রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটির অ্যাপ্লিকেশন কন্ট্রোল ব্যবহার করে ভাইরাসের আশঙ্কা আছে কিংবা তথ্য চুরি হতে পারে এমন সম্ভাবনা থাকা অ্যাপের সঙ্গে প্রাতিষ্ঠানিক কাজের প্রয়োজনে চাইলে স্কাইপ, ফেসবুক, হোয়াটস অ্যাপ কিংবা যেকোনো গেমিং অ্যাপ্লিকেশন নির্ধারিত সময়ের জন্য ব্লক করে রাখা যায়। এছাড়াও রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটিতে রয়েছে ক্যাটাগরি ব্লকিং। এর সাহায্যে জব সার্চ, গেমস বা স্পোর্টস- যে ক্যাটাগরি ব্লক করা হবে, এন্ড পয়েন্ট সিকিউরিটি সংযুক্ত নেটওয়ার্কের কোনো ডিভাইস থেকে আর সেই ক্যাটাগরির কোনো সাইট ব্রাউজ করা যাবে না।’
তবে কোনো কারণে যদি এমন হয়- অফিসের পরিবেশ রক্ষায় সব মেসেজিং অ্যাপস বন্ধ করে দেয়া দরকার, আবার অন্যদিকে স্কাইপ ব্যবহার করেই অফিসের অনেক যোগাযোগ করা হয়ে থাকে। এমন অবস্থায়ও রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি সম্পূর্ণ কার্যকর। ক্যাটাগরি এক্সেপশনে অ্যাপ অ্যাড করা হলে তা চালু থাকবে বলে জানান সঞ্জিত চ্যাটার্জি।
তিনি বলেন, ‘অনেক সময় একটি অ্যাপের চলমান ভার্সন ব্লক করলেও আগের ভার্সন বা নতুন ভার্সন এলে তা আবার চালানো যায়, কিন্তু রিভের এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটিতে মাল্টি-ভার্সন ব্লকিং সুবিধা থাকায় একটি অ্যাপ্লিকেশন একবার ব্লক করা হলে তা আর চালানো যাবে না।’
রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটির ওয়েব কন্ট্রোলিং অত্যন্ত শক্তিশালী। আইসোলেটেড এবং রোমিং উভয় ধরণের ক্লায়েন্টের ক্ষেত্রেই রিভ এন্ডপয়েন্ট সিকিউরিটি সংযুক্ত নেটওয়ার্কে কোনো অনিরাপদ ওয়েবসাইট ব্রাউজ করামাত্র অ্যাডমিন নোটিফিকেশন পেয়ে যাবেন। শুধু তাই নয়, ইউআরএল ব্লকিংয়ে চাইলে আলাদা আলাদা ইউআরএল কিংবা একসাথে গ্রুপ ধরে ইউআরএল ব্লক করা যায়। পাশাপাশি চাইলে কেবল এইচটিটিপি ও এইচটিটিপিএস আছে এমন নিরাপদ ওয়েবসাইটও ব্রাউজিং অনুমোদিত করা যাবে। আবার অননুমোদিত ওয়েবসাইট থেকেও প্রয়োজনভেদে হোয়াইট লিস্টেড করা যাবে। অ্যাডমিন চাইলে যেকোনো ধরণের প্রক্সি বন্ধ করে দিতে পারবেন।
যেকোনো প্রতিষ্ঠানের জন্য ফ্রি ডেমনস্ট্রেশনের সুযোগ রেখেছে রিভ অ্যান্টিভাইরাস। বিস্তারিত জানতে ফোন করতে পারবেন 01844079181 এই নম্বরে অথবা ভিজিট করতে পারেন www.reveantivirus.com/bd/product/endpoint-security-solutions এই ঠিকানায়।

*

*