মটোরোলার আল্ট্রা ওয়াইড ক্যামেরা দিয়ে তোলা যাবে আনুভূমিক ছবি

motorolla

ভার্টিকাল বা উলম্ব (খাড়া) ভিডিও নিয়ে অনেক কাজ করেছে মটোরোলা। এবার হরাইজন্টাল বা আনুভূমিক (শোয়ানো) ভিডিও নিয়ে কাজ শুরু করেছে তারা। প্রতিষ্ঠানটি আল্ট্রা ওয়াইড ক্যামেরা নিয়ে আসছে যার মাধ্যমে আনুভূমিক ভিডিওর অভিজ্ঞতা পাবেন গ্রাহকরা। মটোরোলার নতুন স্মার্টফোন মটোরোলা ওয়ান অ্যাকশনে নতুন এই প্রযুক্তি ব্যবহার করা হবে। এ ধরনের একটি সুবিধা অনেক দিন ধরেই গ্রাহকরা চাচ্ছিলেন। এছাড়া ফোনটিকে আনুভূমিকভাবে ধরলেই বরং আরও স্বাভাবিক মনে হয়। সব চিন্তা করে এ ধরনের একটি ফিচার নিয়ে বাজারে আসছে মটোরোলা। ধারণা করা হচ্ছে, এর মাধ্যমে স্মার্টফোনের প্রতিযোগিতামূলক বাজারে ভালো অবস্থান তৈরি করবে প্রতিষ্ঠানটি। শুরুর দিকে মোবাইল ফোন জগতে মটোরোলা ভালো অবস্থানে থাকলেও ধীরে ধীরে তারা জায়গা হারায়। এ বিষয়টি কারও অজানা নয়। ব্ল্যাকবেরি, মাইক্রোসফট, গুগল এবং অ্যাপলের কারণে আরও পিছিয়ে যায় তারা। এর মধ্যে অনেক উত্থান-পতন হয়েছে। তবে এখন আবারও ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছে মটোরোলা। স্মার্টফোনের প্রতিযোগিতাপূর্ণ বাজারে ভালো অবস্থায় যেতে হলে নতুন উদ্ভাবনের কোনও বিকল্প নেই। মটোরোলা হয়তো সেভাবেই এগোচ্ছে। প্রতিষ্ঠানটি তাদের নতুন স্মার্টফোন মটোরোলা ওয়ান অ্যাকশন নিয়ে বেশ আশাবাদী। এটা এমনভাবে ডিজাইন করা হয়েছে যাতে আল্ট্রা-ওয়াইড ক্যামেরা যুক্ত থাকবে এবং আপনার সাবজেক্ট সবসময় ফ্রেমের মধ্যেই থাকবে। কিন্তু মটোরোলা ওয়ান অ্যাকশনের সবচেয়ে বড় বিশেষত্ব হলো- ক্যামেরা ভার্টিকাল বা উলম্বভাবে ধরলেও এতে ভিডিও হবে হরাইজন্টালি বা আনুভূমিকভাবে। এটা বেশ মজার একটি ধারণা। যদিও গ্রাহকরা এটাকে কিভাবে নেবে তা এখনও বোঝা যাচ্ছে না। ফটোগ্রাফি নামক একটি সাইটের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মটোরোলা ওয়ান অ্যাকশনে পেছন দিকে অন্তত তিনটি ক্যামেরা থাকবে। এর মধ্যে একটি ১৬ মেগাপিক্সেলের ১৭৮ ডিগ্রি আল্ট্রা-ওয়াইড, দ্বিতীয়টি ১২ মেগাপিক্সেলের ৭৮ ডিগ্রি আল্ট্রা-ওয়াইড এবং তৃতীয়টি ৫ মেগাপিক্সেলের হবে। এছাড়া সামনের দিকে প্রচলিত রীতির একটি ১২ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা থাকবে। ১৬ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা দিয়ে স্মার্টফোনটি উলম্বভাবে ধরেও আনুভূমিকভাবে ভিডিও করা যাবে। রেজ্যুলেশন কিছুটা কম হলেও গ্রাহকদের একেবারেই নতুন অভিজ্ঞতা দেবে এটা। অনেক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শুরুতে রেজ্যুলেশন কিছুটা কম। তবে কিছুদিন পর এটি আরও উন্নত হবে। মটোরোলা ওয়ান অ্যাকশনের ৬ দশমিক ৩ ইঞ্চির ফুল এইচডি ডিসপ্লে রয়েছে। এর র‌্যাম ৪ গিগাবাইট, স্টোরেজ ক্ষমতা ১২৮ গিগা। স্মার্টফোনটির ব্যাটারি ক্ষমতা ৩ হাজার ৫০০ মিলি-অ্যাম্পিয়ার। এতে হেডফোন জ্যাকও আছে। ইতোমধ্যে ব্রাজিল, মেক্সিকোসহ আরও কিছু দেশে মটোরোলা ওয়ান অ্যাকশন পাওয়া যাচ্ছে। ল্যাটিন আমেরিকার অন্যান্য দেশ, এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চল ও ইউরোপের বিভিন্ন দেশে এটি পাওয়া যাবে সামনে মাসে। অন্যদিকে যুক্তরাষ্ট্র এবং কানাডায় স্মার্টফোনটি পাওয়া যাবে অক্টোবরে।

*

*