প্রথমবারের মতো আইএফএ-তে রিয়েলমি

realmee

স্মার্টফোন ব্র্যান্ড রিয়েলমি জানিয়েছে তারা এ বছর সেপ্টেম্বর বার্লিনে অনুষ্ঠিতব্য আইএফএ-তে অংশগ্রহণ করে “২০২০ রিয়েলমি ব্র্যান্ড লঞ্চ কনফারেন্স” করবে। সম্মেলন চলাকালীন রিয়েলমি তাদের সাম্প্রতিক ব্র্যান্ড স্ট্র্যাটেজি এবং পণ্যের পোর্টফোলিও উন্মোচন করবে এবং বিশ্বব্যাপী তরুণদের উৎসাহিত করার জন্য “ডেয়ার টু লিপ” স্পিরিটের আশ্বাস দেবে।

রিয়েলমির প্রতিষ্ঠাতা এবং প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা স্কাই লি বলেছেন, “রিয়েলমি লিপ-ফরওয়ার্ড প্রযুক্তি এবং ট্রেন্ডসেটিং ডিজাইনের উচ্চমানের পণ্য নির্মাণে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। মাত্র মাসেই রিয়েলমি বিশ্বের শীর্ষ ৭ স্মার্টফোন ব্র্যান্ডের মাঝে স্থান করে নিয়েছে এবং দ্বিতীয় বার্ষিকীর আগেই সাড়ে ৪ কোটি ব্যাবহারকারীর হাতে পৌঁছে গেছে। আইএফএ ২০২০-এ আন্তর্জাতিক মঞ্চে বিশ্বের কাছে রিয়েলমি তাদের সর্বশেষ ব্র্যান্ড এবং পণ্য পরিকল্পনা ঘোষণা করবে এবং সবার জন্য চমৎকার পণ্য আনতে থাকবে।”

রিয়েলমি এবারই প্রথববারের মতো আইএফএ-তে অংশ নিচ্ছে। ভারত ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় সফলভাবে কার্যক্রম শুরুর পর এবার রিয়েলমি ইউরোপীয় বাজারের দিকে ঝুঁকছে এবং এটিকে তারা মূল কৌশল বাজার হিসেবে গড়ে তুলবে। ইউরোপের বাজারে সাফল্য অর্জনের লক্ষ্যে রিয়েলমি ইন্ডিয়ার ভাইস প্রেসিডেন্ট ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মাধব শেঠকে ইন্ডিয়া ও ইউরোপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

প্রযুক্তিগত উৎকর্ষতার জন্যে বিশ্বে রিয়েলমির দ্রুত প্রবৃদ্ধি ঘটছে। মাত্র ২ বছরে ৬১টি বাজারে প্রবেশ করেছে রিয়েলমি। ২০২০ সাল থেকে রিয়েলমি তাদেরকে “ফাইভ জি এর পপুলারাইজার ” হিসেবে অভিহিত করেছে এবং লিপ-ফরওয়ার্ড প্রযুক্তি এবং ট্রেন্ডসেটিং ডিজাইন সহ অনেক ৫জি পণ্যের নিয়ে আসছে।

রিয়েলমি তাদের নিজস্ব প্রযুক্তির ডার্ট চার্জার ও সুপার ডার্ট চার্জারের ক্রমাগত উন্নতিসাধন করছে এবং ১২৫ ওয়াটের আল্ট্রাডার্ট প্রযুক্তি ফাইভ জি স্মার্টফোনের ব্যাটারি সংক্রান্ত সকল উদ্বেগ সমাধান এখন সর্বোত্তম সমাধান।

এছাড়াও রিয়েলমি বিশ্বব্যাপী দ্রুততম বর্ধনশীল এআইওটি ব্র্যান্ড হবার উচ্চাভিলাষ ব্যক্ত করেছে এবং সে লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে। ১ + ১ : স্মার্টফোন + এআইওটি স্ট্র্যাটেজির মাধ্যমে রিয়েলমি সারাবিশ্বের ব্যবহারকারীদের জন্য একটি ট্রেন্ডসেটিং স্মার্ট লাইফস্টাইল তৈরি করতে কাজ করে যাচ্ছে।

এ বছর রিয়েলমি ৪ টি শ্রেণীতে ৫০টিরও বেশি এআইওটি পণ্য চালু নিয়ে আসবে এবং তরুণদের জীবনকে আরো সহজ করতে খুব শিগ্রই এই সংখ্যা ১০০ তে উন্নীত করবে।

রিয়েলমি ক্রমাগত বিশ্ব বাজারে তাদের সম্প্রসারণ অব্যাহত রাখবে এবং “ডেয়ার টু লিপ” স্পিরিটে তরুণদের টেক-ট্রেন্ডি লাইফস্টাইল দেয়ার মাধ্যমে বার্ষিক ১০ কোটি বিক্রয়ের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে কা করে যাবে।

*

*