পাঠাও ও তমা ট্যাক্সি চুক্তিবদ্ধ

toma taxi

দেশের জনপ্রিয় রাইড শেয়ারিং অ্যাপ পাঠাওয়ের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়েছে তমা ট্যক্সি। এই চুক্তির ফলে একটি প্লাটফর্মে গাড়ির সেবা প্রদান আরো বৃদ্ধি পাবে। পাঠাওয়ের ভাইস-পেসিডেন্ট কিশোয়ার হাসিমি এবং তমা ট্যাক্সির হেড অব অপারেশন সিফাত মোহাম্মদ জুনায়েদ সম্প্রতি তাদের নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে এই চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।

পাঠাওয়ের পরিচালক (কাস্টমার এক্সপেরিয়েন্স) আলউইন রাজিভ, সিনিয়র ম্যানেজার (ইমপ্যাক্ট ফাইনান্সিং) রুজান সারওয়ার, জুনিয়র ভিপি (প্রডাক্ট) আহমেদ ফাহাদ, ম্যানেজার (ডাইরেক্ট অ্যাকুজিসন) আহমেদ আসিফ এবং ম্যানেজার (অপারেশনস) মাহফুজুল আমিন শেখসহ উর্ধ্বতন কমকর্তারা এসময় উপস্থিত ছিলেন।

গ্রাহকরা যেন তাদের গাড়ি বাছাইয়ের ক্ষেত্রে পছন্দ অনেক বেশি পান সে লক্ষ্যে এই চুক্তির আওতায় পাঠাওয়ের বহরে ২০০ এর বেশি ট্যাক্সি যুক্ত হলো। পাঠাও অ্যাপের মাধ্যমে পাঠাও গাড়ির ব্যানারে তমার সব ট্যাক্সি এখন রাইড শেয়ার করবে। বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো এককভাবে আরামদায়ক, নিরাপদ এবং আস্থাশীল ট্যাক্সি সেবা দিয়ে আসছে তমা ট্যাক্সি। বর্তমানে তমার বহরে ২৫০ টি ট্যাক্সি রয়েছে।

ফার্স্ট বুকিং, জিপিএস ট্র্যাকিং এবং ফ্রি ওয়াইফাই বৈশিষ্ঠের এই প্রিমিয়াম ট্যাক্সি সার্ভিস ২০১৪ সাল থেকে তাদের সেবা পরিচালনা করে আসছে এবং মূলত ঢাকাতেই সেবা দিয়ে যাচ্ছে। সেরা মানের সেবা প্রদান করে তমা ট্যাক্সি সার্ভিস ধারাবাহিকভাবে গ্রাহকদের অভিজ্ঞতায় সেরা হয়ে উঠেছে এবং দেশের গণপরিবহনের মূল চাবিকাঠি হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে পেরেছে।

পাঠাও বাংলাদেশের সবচেয়ে দ্রূত গতিতে বেড়ে চলা প্রযুক্তি-ভিত্তিক স্টার্ট আপ। দেশের কাঠামোগত বিভিন্ন সমস্যার মোকাবেলায় তারা গড়ে তুলছে বা¯তবমূখী ও বা¯তবায়নযোগ্য সমাধান। সর্ববৃহৎ ই-কমার্স ডেলিভারি কোম্পানি এবং অন্যতম জনপ্রিয় রাইড- শেয়ারিং পরিবহন সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করার পর তারা এখন চালু করেছে খাবার ডেলিভারি সেবা, আর এই সকল সেবা এখন পাওয়া যাচেছ একই প্ল্যাটফর্মে।

*

*