জনপ্রিয় হচ্ছে মটোরোলার অত্যধুনিক প্রযুক্তির ইয়ার ভার্ভবাডস

sale extra

সম্প্রতি দেশের বাজারে বেশ কয়েক ধরনের অডিও লাইফস্ট্যাইল পণ্য নিয়ে এসেছে মটোরোলার ন্যাশনাল পার্টনার সেলেক্সট্রা লিমিটেড। যার মধ্যে বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে অত্যাধুনিক প্রযুক্তির তিন মডেলের ইয়ার ভার্ভবাডস। ইয়ারবাডসগুলো হলো- ভার্ভবাডস-১০০, ভার্ভবাডস-৩০০ এবং ভার্ভবাডস-৪০০।

এসব ভার্ভবাডসে ব্লুটুথের সর্বশেষ ভার্সন ৫ ব্যবহার করা হয়েছে, যা ১০ মিটার রেঞ্জের মধ্যে দেবে ক্রিস্টাল ক্লিয়ার সাউন্ড। আর ওয়াটার প্রুফ হওয়ায় অতিরিক্ত ঘাম বা প্রচণ্ড বৃষ্টির মধ্যেও কোনও ধরনের ঝুঁকি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে। ডিভাইসে টাচ করেই কল ও মিউজিক কন্ট্রোল করা সম্ভব, যা মনো ব্লুটুথ হেডসেট হিসেবেও ব্যবহার করা যাবে। এছাড়াও ডিভাইসগুলোতে থাকছে স্মার্ট ভয়েস অ্যাসিসট্যান্ট, যা হাবল কানেক্ট’র মাধ্যম্যে অ্যামাজন অ্যালেক্সা, গুগল অ্যাসিসট্যান্ট ও সিরি ব্যবহার করে মিউজিক, ম্যাপস ইত্যাদি কন্ট্রোল করা যাবে।

দেশে মটোরোলার ন্যাশনাল পার্টনার সেলেক্সট্রা লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সাকিব আরাফাত বলেন, ‘আমরা চেষ্টা করছি ক্রেতাদের ক্রয়ক্ষমতার মধ্যে সবচেয়ে ভাল পণ্য পৌঁছে দিতে। যেখানে প্রতিযোগী ব্র্যান্ডগুলোর একই স্পেসিফিকেশনের পণ্যের দাম সাত হাজার থেকে শুরু সেখানে মটোরোলার পণ্যের দাম শুরু ৩ হাজার ৯৯৯ টাকা।’

ভার্ভবাডস-১০০: ডিভাইসটিতে লো-পাওয়ার কনজাম্পশনের কারণে একবার ফুল চার্জে ১৪ ঘণ্টা ব্যবহার করা যাবে। যার বর্তমানে বাজার মূল্য ৩ হাজার ৯৯৯ টাকা।

ভার্ভবাডস-৩০০: ডিভাইসটি পেনসিল সাইজের আকর্ষণীয় প্রিমিয়াম মেটালিক-ম্যাগনেটিক কেস ব্যবহার করা হয়েছে। বাড্সটি একবার ফুল চার্জে সর্বোচ্চ ১০ ঘণ্টা ব্যবহার করা যায়। যার বর্তমান বাজারমূল্য ৫ হাজার ২৯৯ টাকা।

ভার্ভবাডস-৪০০: ডিভাইসটি আকর্ষণীয় ক্যাপসুল সাইজের প্রিমিয়াম কেস ব্যবহার করা হয়েছে। বাড্সটি একবার ফুলচার্জে সর্বোচ্চ ১২ ঘণ্টা চলবে। যার বর্তমান বাজার মূল্য ৫ হাজার ৪৯৯ টাকা।

*

*