কোরবানির গরু মিলবে প্রিয়শপ ডটকমে

online kurbani priyoshop

ই-কমার্স প্লাটফর্ম প্রিয়শপ ডটকম (priyoshop.com) আয়োজন করেছে ‘অনলাইন কোরবানি হাট’’। এর ফলে পরিবারের সব সদস্যদেরকে দেখিয়েই কিনতে পারবেন এবারের কোরবানির পশুটি! এরই পরিপ্রেক্ষিতে কোরবানির পশু কেনাবেচার জন্য ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়ের জন্য সুবিধাজনক পরিস্থিতি সৃষ্টি করবে বলে আশা করছে প্রিয়শপ।

একেবারে প্রান্তিক খামারিদের কাছ থেকে সংগ্রহ করা গরু ও ছাগল দিয়ে অনলাইন কোরবানি হাটে সাজিয়েছেন প্রতিষ্ঠানটি। ওয়েবসাইট থেকে কেউ কোরবানির পশু কিনলে সেটি বিনা খরচে বাড়ি পৌঁছে দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছে এই ওয়েবসাইটে। কেনার পর বাসায় নিয়ে যাওয়ার ঝক্কিও পোহাতে হবে না ক্রেতাকে। ইতোমধ্যে কোন কোন গরু বিক্রি করা হবে, সেগুলো ঠিক করা হয়েছে। আগামী ৫ জুলাই থেকে ক্রেতারা ওয়েবসাইটে গরু দেখতে এবং কিনতে পারবেন। এখানে পশুর ছবিসহ দাম, উচ্চতা ও ওজন দেওয়া আছে। ক্রেতারা গরু পছন্দ করার পর বিকাশ, ডেবিট বা ক্রেডিট কার্ড, ব্যাংক ডিপোজিট, মোবাইল ব্যাংকিং-এ মূল্যে পরিশোধ করে তা নিশ্চিত করতে পারবেন। প্রবাসীরা পৃথিবীর যেকোনো প্রান্ত থেকে পছন্দের পশু কিনে ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে দাম পরিশোধ করলে বাংলাদেশে তাদের দেওয়া নির্ধারিত ঠিকানায় গরু পৌঁছে দিবে প্রিয়শপ।

প্রক্রিয়া নিয়ে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আশিকুল আলম খাঁন বলেন, গরুর ওজন অনুযায়ী কেজিপ্রতি দামের ভিত্তিতে ‘ফিক্সড প্রাইসে’ গরু বিক্রি করা হবে। কোরবানির পশু কেনা মাত্র ক্রেতাকে এসএমএস দিয়ে নিশ্চিত করা হবে। আর যারা বুকিং দিচ্ছেন, ঈদের এক/দু’দিন আগে তাদের বাসায় গরু পৌঁছে দেওয়া হবে।

এছাড়া ঝামেলা ও খরচ বেশি হলেও করোনাভাইরাসের কারণে ‘ফুল প্রসেস সার্ভিস’ দেবে প্রিয়শপ। যেহেতু এটা কোরবানির বিষয়, তাই ধর্মীয় সব অনুষঙ্গ নিশ্চিত করে কোরবানির সময় হাফেজের তত্বাবধানে কোরবানি দেওয়া হবে। কোরবানি শেষ হওয়ার পর এসএমএসের মাধ্যমে তা ক্রেতাকে জানিয়ে দেওয়া হবে এবং প্রক্রিয়াজাত করে মাংস বাড়িতে পৌঁছে দেয়া হবে। জনাব খাঁন জানান, কোরবানি উপলক্ষে গ্রাম পর্যায়ে যারা গরু পোষেন এবং এ বছর অনলাইনে বেচাকেনা করার কথা ভাবছেন তাদের জন্য প্রিয়শপ ওয়ান স্টপ সমাধান নিয়ে হাজির হয়েছে।

আশিকুল আলম খাঁন আরো বলেন, কুরবানি ঈদ উপলক্ষে প্রিয়শপে ডিজিটাল স্কেল, ছুরি, কাঁচি ও চামচ, স্লাইসার ইত্যাদি পণ্য ছাড়ে মিলছে। এছাড়া থ্রি-পিস, শাড়ি, পাঞ্জাবি, শার্ট, প্যান্ট, টি-শার্ট, পোলো টি-শার্ট, ইম্পোর্টেড জুয়েলারি, রোদ চশমা, ঘড়ি, ঘর সাজানোর সামগ্রী, ইলেকট্রনিকস, ও প্রসাধনীসহ বাহারি সব পণ্য পাওয়া যাচ্ছে। প্রায় প্রতিটি পণ্যে রয়েছে ঈদের বিশেষ মূল্যছাড়।

সংকটকালীন এই সময় গ্রাহকদের যেন ঘরের বাইরে বের হতে না হয় সেজন্য প্রিয়শপ টীম কাজ করে যাচ্ছে। করোনা ভাইরাসের কথা মাথায় রেখে কর্মী এবং গ্রাহকদের সুরক্ষার ব্যাপারে বিশেষভাবে নজর দিচ্ছে। প্যাকেজিংয়ের ক্ষেত্রে যথাযথ সাবধানতা অবলম্বন এবং সুরক্ষা নিশ্চিত করা হচ্ছে। ডেলিভারির কাজে নিয়োজিতদের নিরাপত্তা উপকরণ নিশ্চিত করা ও যখন তাঁরা ডেলিভারি করতে যাচ্ছেন তখন সেফটি কিটস ব্যবহার করছেন কিনা তা চেক করা হয়। এছাড়াও তাঁদের নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষাও করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, ৫৬ হাজার বর্গমাইলের প্রতিটি দোরগোড়ায় প্রয়োজনীয় পণ্যটি সঠিক মূল্যে এবং শতভাগ সেবা নিশ্চিত-পূর্বক পৌঁছে দেয়ার প্রত্যয়ে  কাজ করে যাচ্ছে প্রিয়শপ। প্রিয়শপ লক্ষাধিক পণ্যের পসরা নিয়ে সাজিয়েছে সাইটটি। বর্তমানে লাইফ স্টাইলের এ-টু-জেড পণ্যই মিলবে এই সাইটে। বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন https://priyoshop.com/

*

*