কোভিড-১৯ মোকাবেলায় জ্যাক মা ও আলিবাবা ফাউন্ডেশনের মেডিক্যাল সাপ্লাই অনুদান

jack ma

বৈশ্বিক মহামারী কোভিড-১৯ এর সংক্রমণ মোকাবেলায় সহায়তা করার জন্য জ্যাক মা ফাউন্ডেশন এবং আলিবাবা ফাউন্ডেশন মধ্য, দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশীয় দেশগুলিতে প্রচুর পরিমাণে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সরবরাহ অনুদানের পরিকল্পনা করেছে।

ফাউন্ডেশনটি ১৮ লক্ষ মাস্ক, ২, ১০,০০০ পিস কোভিড-১৯ টেস্ট কিট, ৩৬,০০০ পিস প্রতিরক্ষামূলক পোশাক, ভেন্টিলেটর, ফোরহেড থার্মোমিটার এবং অন্যান্য চিকিত্সা এবং মহামারী প্রতিরোধের উপকরণ দান করার বিষয়ে ইতমধ্যে আফগানিস্তান, বাংলাদেশ, কম্বোডিয়া, লাওস, মালদ্বীপ, মঙ্গোলিয়া, মায়ানমার, নেপাল, পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কা সরকারের সাথে যোগাযোগ করেছে।

অনুদান বিতরণের বিষয়ে বিপুল সংখ্যক দেশ তাদের ভৌগলিক দূরবর্তিতার কারণে একটি লজিস্টিকএবং পরিবহন চ্যালেঞ্জ উপস্থাপন করেছিল যা কাটিয়ে উঠতে ফাউন্ডেশনটি মালয়েশিয়ায় ২০১৭ সালে প্রতিষ্ঠিত ইডব্লিউটিপি (ইলেক্ট্রনিক ওয়ার্ল্ড ট্রেড প্ল্যাটফর্ম) কে সরবরাহ সহায়ক হিসেবে ব্যবহার করবে।

এই উপলক্ষ্যে জ্যাক মা তার টুইটার বার্তায় বলেছেন “আমাদের এই ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য একসাথে কাজ করতে হবে,এতগুলি দেশে দ্রুত অনুদান সরবরাহ করা সহজ কাজ নয়, তবে আমরা এটি সম্পন্ন করব। এগিয়ে যাও, এশিয়া! “

“এই মহামারীর প্রাদুর্ভাবের কারনে গ্লোবাল লজিস্টিক সিস্টেম একটি বিরাট চ্যালেঞ্জের মুখে পরেছে। ইডব্লিউটিপি-এর সহায়তায় আমরা প্রত্যন্ত এলাকার মানুষ যাদের সবচেয়ে বেশি অনুদান প্রয়োজন সেখানে আমরা দ্রুত পরিবহন এবং ডেলিভারি দেওয়ার যথাসাধ্য চেষ্টা করছি।” বলেছেন ইডব্লিউটিপি-এর সেক্রেটারি জেনারেল জান্তাও সং।

এই সপ্তাহের শুরুতে, ফাউন্ডেশনগুলি মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, থাইল্যান্ড এবং ফিলিপাইনে চিকিত্সা সরবরাহের অনুদানের ঘোষণা করেছে এবং গতি পরিবহন ও সরবরাহের জন্য ইডব্লিউটিপির লজিস্টিকের দক্ষতার সঞ্চার করেছে। ইডব্লিউটিপি অংশীদার দেশগুলির ক্ষুদ্র সংস্থাগুলিকে তাদের পূর্ণ অর্থনৈতিক সম্ভাবনা উপলব্ধি করার জন্য প্রতিবন্ধকতা হ্রাস করতে সাহায্য করে এবং বৈশ্বিক বাণিজ্য পরিচালনকে আরও সহজ করে তোলে।

*

*