এমআরপি মুল্যে পণ্য কিনলে ক্রেতাদের লোকসানের সুযোগ নেই

MRP Value

সর্বোচ্চ খুচরা মূল্য(এমআরপি) সংযুক্ত স্টিকারে পণ্য বিক্রি করলে ক্রেতাদের লোকসান হওয়ার সুযোগ থাকবে না। সর্বত্র একই মূল্যে পণ্য বিক্রি হওয়ার কারণে কম্পিউটার এবং এর যন্ত্রাংশ ব্যবসা রাজধানী কেন্দ্রিক না হয়ে সারাদেশে কম্পিউটার মার্কেটেগুলোর বিক্রি বাড়বে। এতে ক্রেতারা যেমন কেনাকাটায় সন্তুষ্টি অর্জন করতে পারবেন, তেমনি বিক্রেতারাও ব্যবসায় ছন্দ ফিরে পাবেন। ওয়্যারেন্টি পলিসি এক থাকার কারণে পণ্যের গুনগতমানের নিশ্চয়তাও মিলবে সবখানে।

রাজধানীর ধানমন্ডির বিসিএস ইনোভেশন সেন্টারে সারাদেশের বিসিএস সদস্যদের সঙ্গে ‘এমআরপি ও ওয়ারেন্টি নীতিমালা ২০১৮’ বাস্তবায়ন বিষয়ক দিনব্যাপী মতবিনিময় সভায় বিসিএস সদস্যরা এমআরপি ও ওয়ারেন্টির ব্যাপারে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার ঘোষণা দেন।

মতবিনিময় সভায় প্রথমে বক্তব্য রাখেন বিসিএস মহাসচিব মোশারফ হোসেন সুমন। মত বিনিময় সভাকে দুটি সেশনে সাজানো হয়। প্রথম সেশনে ওয়ারেন্টি নীতিমালা ২০১৮ বিষয়ে বক্তব্য দেন ওয়ারেন্টি কমিটির চেয়ারম্যান ও বিসিএস পরিচালক মো. আছাব উল্লাহ্ খান জুয়েল। এসময় সদস্যরা ওয়ারেন্টি নিয়ে তাদের মতামত ব্যক্ত করেন। কম্পিউটার পণ্য এবং এর যন্ত্রাংশ সেবায় ওয়ারেন্টির নিয়ম-নীতি, লাইফটাইম ওয়ারেন্টির সংজ্ঞা, ওয়ারেন্টি স্টিকারের নিরাপত্তাসহ ওয়ারেন্টি বিষয়ক সকল বিষয়ে সদস্যরা নিজেদের মতামত ব্যক্ত করেন।

দ্বিতীয় পর্বে স্বাগত বক্তব্য দেন বিসিএস সভাপতি ইঞ্জি. সুব্রত সরকার। এমআরপি নীতিমালার সুফল এবং কার্যনীতি নিয়ে সদস্যদের মত প্রদানের জন্য তিনি আহবান করেন। এসময় এমআরপি কমিটির চেয়ারম্যান মো. মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন এমআরপি নীতি বাস্তবায়নে প্রণীত পদক্ষেপগুলো সম্পর্কে বিস্তারিত বর্ণনা করেন। সভায় উপস্থিত সব সদস্য এমআরপি নীতি মেনে চলার ব্যাপারে হাত তুলে বিসিএস কার্যকরী কমিটিকে আশ্বস্ত করেন।

মতবিনিময় সভায় বিসিএস সহ-সভাপতি ইউসুফ আলী শামীম, কোষাধ্যক্ষ মো. জাবেদুর রহমান শাহীনসহ বিসিএস এর শাখা কমিটির চেয়ারম্যান, সেক্রেটারিসহ অন্যান্য বিসিএস সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সভা শেষে বিসিএস শাখা কমিটিগুলোতে কিউআর কোড সম্পন্ন বিসিএস স্টিকার বিতরণ করা হয়।

*

*