আইসিডিডিআরবি’র পেমেন্টে এখন বিকাশে

bkash ICDDRB

আইসিডিডিআরবিতে সকল ধরনের মেডিকেল পরীক্ষা-নিরীক্ষার পেমেন্ট এখন বিকাশ করা যাবে । এ লক্ষ্যে সম্প্রতি দেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিস প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান বিকাশ এর সাথে ইন্টারন্যাশনাল সেন্টার ফর ডাইরিয়াল ডিজিজ রিসার্চ, বাংলাদেশ (আইসিডিডিআরবি)’র একটি চুক্তি স্বাক্ষর হয়।

এই চুক্তির ফলে আইসিডিডিআর,বি’র মহাখালী এবং নিকেতন ডায়গনস্টিক সেন্টারে রোগীরা আরো সহজে,নিরাপদে এবং দ্রুততার সাথে বিকাশের মাধ্যমে পরীক্ষা-নিরীক্ষার বিল পরিশোধ করার সুযোগ পাবেন।

সম্প্রতি আইসিডিডিআরবি কার্যালয়ে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বিকাশের চিফ কর্মাশিয়াল অফিসার মিজানুর রশীদ এবং আইসিডিডিআর,বি’র ল্যাবরেটরি সাইন্স অ্যান্ড সার্ভিস ডিভিশনের সিনিয়র ডিরেক্টর প্রফেসর ডা. নিয়াজ আহমেদ ও ফিন্যান্স কন্ট্রোলার আনারিতা মুথনি মুগামবি নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন এবং হস্তান্তর করেন।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন বিকাশের হেড অব এম-কর্মাস, মো: মাহবুব সোবহান, চ্যানেল ম্যানেজার আহসানুল কবীর, অ্যাকাউন্ট ম্যানেজার আসাদুল্লাহ এমিল এবং আইসিডিডিআর,বি’র ক্লিনিক্যাল ল্যাবরটরি সাইন্স অ্যান্ড সার্ভিসেস ডিভিশনের সিনিয়র ডাটা ম্যানেজার মো: শাহরিয়ার বিন এলাহী, ও ফিন্যান্স ডিভিশনের ম্যানেজার ট্রেজারি মো: মাজহারুল ইসলাম সহ উভয় প্রতিষ্ঠানের উর্দ্ধতন কর্মকর্তাগণ।

ইন্টারন্যাশনাল সেন্টার ফর ডাইরিয়াল ডিজিজ রিসার্চ, বাংলাদেশ (আইসিডিডিআরবি)’র ঢাকায় একটি আন্তর্জাতিক মানের গবেষণা হাসপাতাল। ১৯৭৮ সালে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। বর্তমানে বাংলাদেশ সরকার সহ ৫৫টি দাতা সংস্থার অর্থায়নে হাসপাতালটির কার্যক্রম পরিচালিত হয়। প্রতিষ্ঠানটি আন্তর্জাতিক স্বীকৃতিপ্রাপ্ত (আইএসও ১৫১৮৯:২০১২ এবং আইএসও ১৫১৯০:২০০৩) ল্যাবরেটরি থেকে সাধারন জনগনকে বিভিন্ন ধরনের স্বাস্থ্যগত পরীক্ষা-নিরীক্ষা সেবা দিয়ে আসছে । এই সেবা থেকে প্রাপ্ত মুনাফা হাসপাতালটির জীবন রক্ষাকারী কার্যক্রমে ব্যয় করা হয়ে থাকে।

ব্র্যাক ব্যাংক, যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক মানি ইন মোশন, বিশ্ব ব্যাংক গ্রæপের অর্ন্তগত ইন্টারন্যাশনাল ফিন্যান্স কর্পোরেশন, বিল অ্যান্ড মেলিন্ডা গেটস ফাউন্ডেশন এবং অ্যান্ট ফিনান্সিয়াল এর যৌথ মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান বিকাশ, ২০১১ সাল থেকে বাংলাদেশ ব্যাংক নিয়ন্ত্রিত পেমেন্ট সেবা দানকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে বিভিন্ন ধরনের মোবাইল/ডিজিটাল ফিনান্সিয়াল সার্ভিস দিয়ে আসছে।

*

*