অ্যান্ড্রোয়েড ও আইওএস ট্রেনিং এ ইজেনারেশন

e-generation

তথ্য প্রযুক্তি সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান ইজেনারেশন লিমিটেড অ্যান্ড্রোয়েড ও আইওএস অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্টে কর্মজীবী এবং শিক্ষার্থীদের দক্ষতা বৃদ্ধিতে সফল ভাবে আরেকটি কাস্টমাইজড ট্রেনিং সম্পন্ন করেছে। সম্প্রতি প্রতিষ্ঠানটি এসেনশিয়াল টুলস এন্ড টেকনিকস ফর অ্যান্ড্রোয়েড অ্যান্ড আইওএস অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্ট ট্রেনিং এর মাধ্যমে মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্টের প্রশিক্ষণ কর্মসূচি সম্পন্ন করল। ইজেনারেশন এর অন্যান্য প্রশিক্ষণগুলোর মধ্যে অফিস অটোমেশন, ওয়েব ডেভেলপমেন্ট, প্রোগ্রামিং, সাইবার সিকিউরিটি এবং ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট অন্যতম। গত ২৫ তারিখে কোম্পানিটির এ প্রশিক্ষণ সফল্ভাবে সম্পন্ন হয়। অত্যাধুনিক প্রশিক্ষণ কক্ষে নতুন টুলস এবং টেকনিক শিখে প্রশিক্ষণার্থীরা বেশ উচ্ছ্বাসিত। এধরণের প্রশিক্ষণ কর্মজীবনে অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। উক্ত ট্রেনিং এ মুলত অ্যাপ্লিকেশনের কোর সিস্টেম ডিজাইন, অ্যাপ লাইফসাইকেল, ইউজার ইন্টারফেস এবং ফাংশনালিটি নিয়ে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়।

এ প্রশিক্ষণের আলোচনা সভায় ইজেনারেশনের পক্ষ থেকে উপস্থিত ছিলেন প্রতিষ্ঠানটির চিফ বিজনেস ডেভেলপমেন্ট অফিসার জনাব মনোয়ার হোসেন খান, হেড অফ অপারেশনস জনাব এমরান আবদুল্লাহ এবং সাইবার সিকিউরিটি স্পেশালিষ্ট জনাব তামজীদ রহমান লিও। এছাড়া ন্যানোটেক লিমিটেডের পক্ষ থেকে জেনারেল ম্যানেজার জনাব এমকে আনোয়ার সহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন। মোবাইল অ্যাপ ডেভেলপমেন্টের ভবিষ্যৎ এবং বাংলাদেশী তরুণদের এ সেক্টরে করণীয় শীর্ষক একটি আলোচনায় জনাব এমরান আবদুল্লাহ অংশ নেন। এ আলোচনায় জনাব মনোয়ার হোসেন খান তরুণ সমাজকে মোবাইল অ্যাপস ডেভেলপমেন্টে এগিয়ে যাওয়ার জন্য কঠোর পরিশ্রমী হতে বলেন। তিনি আরও বলেন যে অধ্যবসায় এবং সময়ের সৎ ব্যবহার করলে দ্রুত উন্নতি সম্ভব।

ইজেনারেশন তথ্যপ্রযুক্তি পরামর্শক এবং সফটওয়্যার ফার্ম হওয়ায় দেশে দক্ষ আইটি প্রফেশনালের অভাব সহজেই অনুধাবন করতে পারে। উপরন্তু বিশ্ববিদ্যালয়ের সদ্য পাশ করা শিক্ষার্থীদের দক্ষতা এবং আইটি শিল্পের চাহিদার মধ্যে ব্যাপক তফাৎ রয়েছে। এই দুইয়ের মধ্যে সমন্বয় ঘটাতে ইজেনারেশন কারিগরি ও কর্মক্ষেত্র ভিত্তিক প্রশিক্ষণের ব্যাবস্থা করে থাকে।

 

*

*